ছেলেদের আকৃষ্ট করার উপায়

0
2108
ছেলেদের আকৃষ্ট করার উপায়
5 (100%) 2 votes

পুরুষকে আকৃষ্ট করতে কত চেষ্টাই না করে থাকে মেয়েরা। কখনো পছন্দের মানুষের নজর কাড়তে সুন্দরভাবে সাজাতে হয় নিজেকে। আবার কখনো সুন্দর পোশাকের মাধ্যমে নজর কাড়ার চেষ্টা করতে হয় অনেককেই। তবে বিশ্বের বেশ কয়েকটি গবেষণার ফলাফল থেকে গুরুত্বপূর্ণ ১০টি উপায় এখানে তুলে ধরা হলো:

  • চক্ষু যোগাযোগ করুন
    চোখ হচ্ছে নারীর সেই অঙ্গ যা কিনা পুরুষকে আকৃষ্ট করতে সবচেয়ে বেশি কার্যকরী ভূমিকা রাখে। চোখের অনেক না বলা কথাও কাছে টেনে আনে প্রিয় মানুষটিকে।
  • হাসি
    হাসি দ্বারা বোঝা যায় মানুষের অন্তরের অন্তর্নিহিত ভাষা। তাই পছন্দের মানুষটির দৃষ্টি আকর্ষণে হাসির কোন বিকল্প নেই। তবে খেয়াল রাখতে হবে নিজের দাঁতগুলো যেন হাসির ক্ষেত্রে কোন রকম বিব্রতকর পরিস্থিতিতে না ফেলে আপনাকে। স্মিত হাসি আপনাকে আরো অন্যান্য ব্যক্তিদের আকর্ষণীয় করে তোলে। হাসি খুশি মনোভাব আপনাকে আরও আত্মবিশ্বাসী করে তুলবে। স্মাইলিং আপনার বন্ধুত্বপূর্ণ মনোভাবকে আরও সফল করে তোলে।
  • শরীর
    সৃষ্টির শুরু থেকেই মানুষ নিজের বাহ্যিক সৌন্দর্য ফুটিয়ে তোলার চেষ্টা করে আসছে। নিয়মিত ব্যায়াম, খাদ্যাভাস, স্বাস্থ্যসচেতনার মাধ্যমে সুন্দর শরীর বজায় রাখা সম্ভব। আর সুন্দর হাসি, চোখের সাথে সুন্দর শরীর হলে তো সোনায় সোহাগা।
  • চুল
    কোন নারীকে ভালো করে লক্ষ্য করার ক্ষেত্রে পুরুষরা যে বিষয়টিকে প্রথম দিকে খেয়াল করে তা হলো চুল। তাই সুন্দর চুল পেতে নিয়মিত পরিচর্যা করাটা জরুরি। নিয়মিত চুলের যত্ন নিন। চুল আপনাকে আরও অনেক আকর্ষণীয় অরে তুলবে। চুলের স্টাইল এ ভিন্নতা এনে আপনাকে তার কাছে আরও নজরে আনতে পারেন।
  • বন্ধু বাছাই
    মানুষ চেনা যায় তার বন্ধু দ্বারা। সুতরাং আপনার আশেপাশের বন্ধু বাছাই করতে সবসময় সতর্ক থাকুন। আপনার কাছের বন্ধুগুলো যদি উত্তম চরিত্রের কিংবা ভালো গুনের অধিকার না হয় তাহলে কাঙ্খিত মানুষটি আপনার কাছে আসতেও দ্বিধা বোধ করতে পারে। তাই সতর্ক থাকুন। আপনি যদি আজে বাজে মানুষদের সাথে বন্ধুত্ব করেন তাহলে সে ভাববে আপনিও তাদের মতো হবেন। তাইতো বন্ধুত্ব নির্বাচনের ক্ষেত্রে সতর্ক হবেন সব সময়।
  • কথা বলার ধরন
    আপনি কীভাবে কথা বলেন তা দ্বারাই জানা যাবে আপনার সেন্স অব হিউমার। আপনার মজা করার গুন থাকলে সবাই চাইবে আপনার কাছাকাছি থাকতে। পরিবেশকে সব সময় হাশিখুশি আর স্বাভাবিক রাখার ক্ষমতার ওপরও নির্ভর করে প্রিয় মানুষের দৃষ্টিআকর্ষণের বিষয়টি। আপনি যদি প্রয়োজনের চেয়ে অধিক কথা বলেন এবং নিজের সম্পর্কে আগে থেকে বাড়তি কিছু বলতে যান তাহলে আপনাকে ব্যক্তিত্বহীন মনে করবে। কথাবলার ধরনে স্মার্টনেস আনতে হবে।
  • পোশাক জ্ঞান
    অনেক মেয়েই মনে করেন খোলামেলা পোশাক পরলেই ছেলেদের দৃষ্টি আকর্ষণ করা যায়। হয়তো যায়। তবে প্রিয় মানুষটি সব সময় মার্জিত ও সুন্দর পোশাকে তার সঙ্গীনিকে দেখতে পছন্দ করে। তাই বিষয়টি মাথায় রেখে সব সময় নিজেকে মার্জিত পোশাকে উপস্থাপন করুন। পোশাকের মাধ্যমেই আপনি কয়েকগুণ বেশি পছন্দের দিক থেকে এগিয়ে থাকতে পারেন।
  • সয়ংসম্পূর্ণতা
    মেয়েরা অনেক সময় নিজেকে কম বয়সী হিসাবে দেখানোর চেষ্টা করে থাকে। তবে পছন্দের মানুষ খুঁজতে ছেলের সয়ংসম্পূর্ণ মেয়েদেরই বেশি পছন্দ করে। যে মেয়েরা স্বয়ংসম্পূর্ণ তারা আত্মনির্ভরশীল হয়। এখন ছেলেরা বাইরের দিকটাই শুধু না অনেক দিক দেখে পছন্দ করে। সারাজীবনের জন্য জীবন সঙ্গী পেতে চাইলে ছেলেরা স্বয়ংসম্পূর্ণ মেয়ে বেশি পছন্দ করে থাকে।
  • ত্বক
    ত্বক সুন্দর হলে এমনিতেই আপনার আত্ববিশ্বাস বেড়ে যাবে। সহজেই নজর কাড়বে প্রিয় মানুষটির। তাই নিজের ত্বকের যত্ন নেয়াটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। আপনি দেখতে যেমনই হন না কেন ত্বক সুন্দর থাকলে আপনাকে এমনিতেই সুন্দর লাগবে। তাই ঘরে বসেই আপনি ত্বকের পরিচর্যা করতে পারেন। প্রয়োজনে পার্লারে যেতে পারেন।
  • ধৈর্যশীলতা
    আপনার ধৈর্যশীলতা গুন থাকলে প্রিয় মানুষটি আপনার ওপর অনেক বেশি আস্থাশীল হবেন। আপনি যদি অল্পতেই ধৈর্য হারিয়ে ফেলেন তাহলে আপনি আপনার জীবন থেকে অনেক কিছু হারিয়ে ফেলতে পারেন।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY